কয়রায় ছাত্রলীগের দু’ পক্ষের সংঘর্ষে আহত ২

কয়রা প্রতিনিধি : কয়রায় ছাত্রলীগ সভাপতি সালাউদ্দিন আহমেদ কে নিয়ে কটুক্তি করায় দু’ পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে ২ জন আহত হওয়ায় খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনাটি উপজেলার কাশিয়াবাদ ফরেষ্ট স্টেশনের সামনে সুতি বাজারে রবিবার সন্ধ্যার পর। খবর নিয়ে জানা গেছে উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি সালাউদ্দিন রবিবার সন্ধ্যার পর সুতি বাজারে ব্যবসায়ীদের সাথে মতবিনিময়কালে সাবেক ছাত্রলীগ সেক্রেটারী আলামিনের ভাই কালাম (৩৫) সভাপতি সম্পার্কে আজে বাজে মন্তব্য করলে ঘটনার সূত্রপাত হয়। এ সময় সভাপতির সাথে থাকা ছাত্রলীগ কর্মীরা প্রতিবাদ করতে গেলে কালাম তাদেরকে মারতে শুরু করলে স্থানীয় মেম্বর ও ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি অহিদ দু’ পক্ষকে থামাতে চেষ্টা করেন, কিন্তু দু’ পক্ষই উত্তেজিত হয়ে এগিয়ে আসায় সংঘর্ষ শুরু হয় এবং দু’ পক্ষের ২ জন অথ্যাৎ কালাম ও মেম্বর অহিদ মোড়ল আহত হয়। সূত্র জানায় ঘটনার পর দু’ পক্ষ আহতদের নিয়ে প্রথমে জায়গীরমহল হাসপাতালে ভর্তি করেন। তবে কর্তব্যরত ডাক্তার রাতেই দু’ জনকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন এবং দু’ পক্ষের দু’ জনই চিকিৎসাধীন আছে। তবে দু’ পক্ষের কেউই মামলা করে নি বলে জানা গেছে। এ বিষয় কয়রা থানায় কথা বলে জানা গেছে, ঘটনার পর পুলিশ সুতি বাজারে পৌছানোর আগেই দু’ পক্ষই বাজার ছেড়েছে। ছাত্রলীগ সভাপতি সালাউদ্দিন জানায় সাবেক ছাত্রলীগ নেতা আলামিনের ভাই কালাম উস্কানি দিয়ে ঘটনার সূত্রপাত ঘটিয়েছে এবং জামাত বিএনপির লোকজন নিয়ে তাদের উপর হামলা চালিয়ে মেম্বর কে পিটিয়ে আহত করেছে। তিনি বলেন, মেম্বর দু’ পক্ষকে মিটিয়ে দিতে চেষ্টা করলেও কালাম তার উপর হামলা চালায়।

আপনার মতামত জানানঃ