তালায় জমি জবর দখলের চেষ্টার অভিযোগ

সেলিম হায়দার, তালা : তালা মাছিয়াড়া গ্রামের মৃত গগন আলী গাজীর পুত্র আরশাদ আলী গাজীর স্বত্ত্ব দখলীয় জমি একই গ্রামের সবুর গাজী ও হাকিম গাজী কর্তৃক জবর দখলের চেষ্টার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে যে কোন মুহুর্তে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষের আশংকা রয়েছে।
সরেজমিনে পরিদশর্নে জানা গেছে, সাতক্ষীরার তালার মাছিয়াড়া গ্রামের এস,এ খতিয়ান ৩৬৮ এর১০২২,১৫৪২,১৫৪৩,১৮০০ ও ১৫৪১ দাগের মধ্যে সাড়ে ৬৭ শতক জমি এস,এ রেকর্ডীয় মালিকের ওয়ারেশ গগন গাজীর স্ত্রী কুলসুম বেগম তার পুত্র আরশাদ আলী গাজীকে গত ২১,১২,২০০২ তারিখে ৭৭৫০ নং দলিলে দানপত্র রেজেষ্ট্রি করে দিয়ে দখল হস্তান্তর করেন। সে মোতাবেক আরশাদ আলী গাজী তার সহোদর ভ্রাতা জনাব আলী গাজীর সাথে এওয়াজ মূলে সম্পত্তি ভোগ দখল করেন। পরবর্তীতে জনাব গাজীর মৃত্যুর পর তার ২পুত্র আঃ সবুর ও আঃ হাকিম লোভের বশবর্তী হয়ে স্বত্ত্বহীন একটি দলিল প্রদর্শন করে আরশাদ গাজীর সহিত এওয়াজ ভঙ্গ ও তার স্বত্ত্ব দখলীয় রেকর্ডীয় সম্পত্তিতে অবস্থিত বাড়ী ঘর ভাংচুর বৃক্ষাদি কর্তনের চেষ্টা করছে।
এ ব্যাপারে জনাব গাজীর পুত্র সবুর গাজী বাদি হয়ে খলিলনগর ইউনিয়ন পরিষদ ও তালা থানায় কয়েকবার অভিযোগ করলে আরশাদ গাজী ৭৭৫০ নং দলিল ও আইন সংগত বলে সিদ্ধান্ত দিলে আবারও সবুর গাজী গত ১৯,১১,১৭ তারিখে অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেটের আদালত সাতক্ষীরায় ১৫৩২/১৭ নং পিটিশনে ১৪৫ ধারায় একটি মামলা দায়ের করে। উভয় পক্ষের শুনানী অন্তে গত ১৩,১১,১৭ তারিখে বিজ্ঞ আদালত মামলা খারিজ করে দেন।
তারপরও আঃ সবুর তালা থানায় পুনরায় ভুয়া অভিযোগ দায়ের করে আরশাদ গাজীকে হয়রানী করছে। এছাড়া আঃ সবুর গংরা বাহির হতে সন্ত্রাসী এনে আরশাদ গাজীর ঘরবাড়ি ভাংচুরের হুমকি প্রদান করছে।
এব্যাপারে আঃ সবুরের সাথে আলাপ করলে তিনি বলেন,কুলসুম বেগম তার পিতার নামে একই তারিখে একটি দলিল করে দেন। যার নং ৭৭৫১। ভুলবশত আরশাদ গাজীর দলিলটি একটু পূর্বে হওয়ায় তারা স্বত্ত্বহীন হয়ে পড়েছেন। মানবিক করণে তারা সম্পত্তি দখল চান। এব্যাপারে এলাকাবাসী প্রশাসনের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন।

আপনার মতামত জানানঃ