তৃতীয় দিনেও শুরু হয়নি হাড়বাড়িয়ায় ডুবন্ত কয়লা জাহাজ উদ্ধারের কাজ

আবু হোসাইন সুমন, মোংলা : তৃতীয় দিনেও শুরু হয়নি মোংলা বন্দরের হাড়বাড়িয়ায় ডুবন্ত কয়লা বোঝাই কার্গো জাহাজের উদ্ধার কাজ। মালিকপক্ষ ডুবন্ত জাহাজটি উদ্ধারের জন্য বন্দর কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে ৭দিনের সময় নিলেও কোন কাজ ছাড়াই ইতিমধ্যে ২ দিন অতিবাহিত হয়ে গেছে। তবে বন্দর কর্তৃপক্ষের বেধে দেয়া ১৫ দিনের মধ্যেও কার্গো জাহাজটি আদৌ উদ্ধার করা সম্ভব হবে কিনা এ নিয়ে দেখা দিয়েছে সংশয়। কারণ এর আগে বন্দর চ্যানেলে যে সব নৌযান ডুবির ঘটনা ঘটেছিল তাতে সময় লেগেছিল কোনটির মাসের অধিক আবার কোনটির কয়েক মাস। তবে ডুবন্ত কার্গো জাহাজের ফিটনেস ও ধারণ ক্ষমতা সার্টিফিকেট, ইনস্যুরেন্সের কাগজপত্রসহ উত্তোলনের কাজে ব্যববহৃত নৌযান এবং প্রয়োজনী যন্ত্রপাতি সংগ্রহে বিলম্ব হওয়াতেই মুলত মালিকপক্ষ কাজ শুরু করতে পারছেনা বলে জানিয়েছেন কার্গো জাহাজের ড্রাইভার মো: আমির হোসেন। এদিকে সুন্দরবনের অভ্যন্তরে হাড়বাড়িয়ায় কয়লার জাহাজ ডুবিতে বনের জলজ-প্রাণীজ ও জীববৈচিত্রের ক্ষয়ক্ষতির বিষয়ে চাদপাই রেঞ্জ কর্মকর্তা মো: শাহিন কবিরের সোমবার বন বিভাগের বিভাগীয় (বাগেরহাট) কার্যালয়ে প্রাথমিক তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের কথা থাকলেও সময়মত তা দিতে পারেনি। পূর্ব সুন্দরবনের বিভাগীয় বন কর্মকর্তা মো: মাহামুদুল হাসান বলেন, মঙ্গলবার সকালেও ডুবন্ত কার্গো জাহাজটি উদ্ধারে কাজ শুরু করতে পারেনি মালিকপক্ষ। তবে দ্রুত সময়ের মধ্যে কার্গোটি উত্তোলনের জন্য মালিকপক্ষের সাথে নিয়মিত যোগাযোগ করা হচ্ছে। উদ্ধারের নামে সময়ক্ষেপন করা হলে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। এছাড়া মঙ্গলবার প্রাথমিক তদন্ত রিপোর্ট হাতে পাওয়ার পর এ বিষয়ে পরবর্তী ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে জানিয়েছেন তিনি।

আপনার মতামত জানানঃ