ফেসবুকে কয়েক হাজার অ্যাপ্লিকেশন স্থগিত

ইউনিক ডেস্ক : ফেসবুক বর্তমানে ব্যবহারকারীদের ডেটাতে সুরক্ষার ব্যবস্থা বৃদ্ধিতে সম্মত হয়েছে এবং থার্ড পার্টি ডেভেলপাররা ব্যবহারকারীদের কাছে যে পরিমাণ তথ্য অনুরোধ করতে পারে তার পরিমাণের উপর বিধিনিষেধ প্রয়োগ করেছে

প্রায় কয়েক হাজার অ্যাপ স্থগিত করেছে ফেসবুক। শুক্রবার (২০ সেপ্টেম্বর) ফেসবুক জানিয়েছে যে, ২০১৮ এর মার্চ মাসে শুরু হওয়া সংস্থাটির চলমান অ্যাপ্লিকেশন বিকাশকারী তদন্তের অংশ হিসেবে কেমব্রিজ অ্যানালিটিকা সারির প্রতিক্রিয়ায় তারা তাদের সামাজিক নেটওয়ার্কিং প্ল্যাটফর্মে কয়েক হাজার অ্যাপকে স্থগিত করেছে।

এই অ্যাপ্লিকেশনগুলোর প্রায় ৪০০ ডেভেলপারের সাথে যুক্ত। ফেসবুক আরও জানিয়েছে যে, এই অ্যাপ্লিকেশনগুলি ব্যবহারকারীদের জন্য হুমকিস্বরুপ নাকি না এমন কোন ইঙ্গীত তারা এখনও দিচ্ছে না।

এই বছরের গোড়ার দিকে সংস্থাটি তার গোপনীয়তা পদ্ধতি বিষয়ক একটি সরকারী তদন্ত সমাধানের জন্য মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারাল ট্রেড কমিশনকে ৫ বিলিয়ন জরিমানা দিতে সম্মত হয়েছে।

এর আগে, যখন ফেসবুক ২০১২ সালের সম্মতি ডিক্রি লঙ্ঘন এবং ৮৩ মিলিয়ন ব্যবহারকারীদের তথ্য ফাঁস করার অভিযোগ অস্বীকার করে তখনই ব্রিটিশ রাজনৈতিক পরামর্শক সংস্থা ক্যামব্রিজ অ্যানালিটিকা এ তদন্ত শুরু করে।

তদন্ত শুরু পর থেকে, ফেসবুক বর্তমানে ব্যবহারকারীদের ডেটাতে সুরক্ষার ব্যবস্থা বৃদ্ধিতে সম্মত হয়েছে এবং থার্ড পার্টি ডেভেলপাররা ব্যবহারকারীদের কাছে যে পরিমাণ তথ্য অনুরোধ করতে পারে তার পরিমাণের উপর বিধিনিষেধ প্রয়োগ করেছে।

সম্প্রতি একটি ব্লগপোস্টে ফেসবুক থেকে জানানো হয় যে,  “আমরা সমাধানের দিকে আগাচ্ছি। হয়তো আমরা সব কিছু ধরতে পারবো না তবে ফাঁক ফোকর ধরার জন্য আমাদের ফেসবুকের বাইরে থেকে সাহায্যের প্রোয়জন”

তথ্যসুত্রঃ রয়টার্স

আপনার মতামত জানানঃ