সুন্দরবনের সম্পদ লুটেরা আর মাদককারবারীদের কঠোর হস্তে দমন করা হবে : উপমন্ত্রী হাবিবুন নাহার

মোংলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি : সুন্দরবনের সম্পদ রক্ষায় আর মাদক নির্মুলে আইনশৃঙ্খলারক্ষাকারী বাহিনীকে আরো বেশি কঠোর হওয়ার আহবাণ জানিয়েছেন পরিবেশ, বন ও জলবায়ু মন্ত্রনালয়ের উপমন্ত্রী হাবিবুন নাহার। বুধবার দুপুরে মোংলায় অফিসার্স ক্লাবে আইনশৃঙ্খলা কমিটির মাসিক সভায় এ আহবাণ জানিয়ে তিনি বলেন, বাংলাদেশকে মাদকমুক্ত করতে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা রয়েছে। সকল প্রকার মাদক নির্মুল করে দেশকে মাদকমুক্ত ঘোষণা করবেন প্রধানমন্ত্রী। তাই প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা বাস্তবায়নে অবশ্যই আইন প্রয়োগকারী সংস্থাগুলোকে সহায়তা করার জন্য স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের প্রতি অনুরোধও জানান তিনি। একই সাথে সুন্দরবন কেন্দ্রিক কিছু সিন্ডিকেট চক্র রয়েছে তাদের ওইসব অবৈধ কর্মকান্ডের কারণে এখনো সুন্দরবনের সম্পদ লুটপাট হচ্ছে, তাদের বিরুদ্ধেও বনবিভাগসহ সকল আইন প্রয়োগকারী সংস্থাকে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার আহবাণ জানান উপমন্ত্রী।
উপজেলা নির্বাহী অফিসার কমলেশ মজুমদাদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভার শুরুতে উপজেলার সকল দপ্তরের কর্মকর্তারা তাদের কর্মকান্ড ও করোনাকালীন সময়ে করণীয় নিয়ে কার্যক্রম উপস্থাপন করেন। এছাড়া পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আঃ রহমান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম হোসেন, ইউপি চেয়ারম্যান ইস্রাফিল হাওলাদার, নারজিনা বেগম, নিখিল চন্দ্র রায়, মোল্লা তারিকুল ইসলাম, গাজী আকবর হোসেন ও মোঃ কবির হোসেন উপজেলা ও পৌর এলাকার সামগ্রিক কার্যক্রমের চিত্র তুলে ধরেন। এ সময় বক্তারা মাদক নির্মুলে পুলিশের অভিযান আরো জোরদারের দাবি জানান। মাদক নির্মুল ও সার্বিক আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখতে পুলিশের কর্মকান্ডের প্রশংসা করে স্থানীয় সাংবাদিকদের পক্ষে বাংলাভিশন’র প্রতিনিধি জসিম উদ্দিন বলেন, শহরের মাদ্রাসা রোড়ে ডিগ্রি মানের একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আর একটি মসজিদের পাশেই সরকার অনুমোদিত একটি দেশীয় মদের দোকান রয়েছে। ওই দেশীয় মদের দোকানটি অন্যত্র সরিয়ে নেয়ারও আহবাণ জানান তিনি।
এদিকে সভায় বিশেষ অথিতির বক্তব্যে উপজেলা চেয়ারম্যান আবু তাহের হাওলাদার বলেন, করোনাকালীন সময়ে সবাইকে অবশ্যই স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। যারা স্বাস্থ্য বিধি মানবেন না তাদের কঠোর আইনের আওতায় আনতে হবে। এজন্য প্রশাসনকে আরো কঠোর হওয়ার আহবাণ জানান তিনি।
এ সভায় করোনাকালীন সময়ে স্থানীয় প্রশাসনের বিভিন্ন কর্মকান্ড উপস্থাপন করেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নয়ন কুমার রাজবংশী।
আর আইনশৃঙ্খলার বিষয়ে সকলকে অবহিত করেন থানার অফিসার ইনচার্জ মো: ইকবাল বাহার চেীধুরী। এ সময় তিনি বলেন, মাদকের ক্ষেত্রে তিনি কোন ব্যক্তিকেই ছাড় দিবেন না। মাদক নির্মুলে প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা বাস্তবায়নে মোংলা থানা পুলিশ তাদের দায়িত্ব সঠিকভাবে পালন করে চলেছেন।
আইনশৃঙ্খলার এ সভায় বিভিন্ন শ্রেণী পেশার শতাধিত ব্যক্তিরা উপস্থিত ছিলেন।

আপনার মতামত জানানঃ