কেশবপুরের ত্রিমোহিনীতে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত

রাজীব চৌধুরী, কেশবপুরঃ হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙ্গালী জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪ তম শাহাদাৎ বার্ষিকী উপলক্ষে ০১ ত্রিমোহিনী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের আয়োজনে মির্জানগর গোপালপুর মোড়ে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত হয় । উক্ত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন আব্দুল আলিম (বাবুল বিশ্বাস), আহবায়ক ০১ নং ত্রিমোহিনী ইউনিয়ন, প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এস.এম. রুহুল আমিন, বিশেষ অতিথি ছিলেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি এইস.এম আমির হোসেন, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক গাজী গোলাম মোস্তফা, কৃষকলীগের সাধারন সম্পাদক বিশিষ্ঠ সাংবাদিক বাবু রমেশ দত্ত, মহিলা আওয়ামীলীগের সভানেত্রী রাবেয়া ইকবাল, পৌর স্বেচ্ছাসেবকলীগের আহবায়ক আবুল বাশার, যুগ্ম আহবায়ক সেলিম খান সহ ০১ নং ত্রিমোহিনী ইউনিয়নের আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্দ । আলোচনা সভা শেষে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বিদেহী আত্মার মাগফিরাত কামনায় দোয়া করা হয় ।

বাগেরহাটে হাসপাতালের ছাদ ধ্বসে রোগী আহত

বাগেরহাট : বাগেরহাটের কচুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের পুরুষ ওয়ার্ডের ছাদ ধ্বসে আব্দুল মান্নান মীর (৮৪) নামের এক রোগী আহত হয়েছে। শনিবার (২৪ আগস্ট) রাত ১২টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। কচুয়া উপজেলা সদরের বাসিন্দা আব্দুল মান্নান মীর সে বৃহস্পতিবার শ্বাস কষ্ট জনিত সমস্যা নিয়ে এই হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন।
কচুয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা ডা. বেলফার হোসেন বলেণ, শনিবার রাতে আব্দুল মান্নান তার নির্ধারিত শয্যায় ঘুমিয়ে ছিলেন। রাতে হঠাৎ করে তার গায়ের উপর ছাদের কিছু অংশ ভেঙ্গে পড়ে। এতে তিনি মাথা ও বুকে আঘাত পায়। খবর পেয়ে আমরা তাকে নিরাপদ স্থানে নিয়ে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা দিয়েছি। তিনি এখন সঙ্কামুক্ত।
তিনি আরও বলেন, আমাদের হাসপাতালের পুরুষ ও মহিলা দুইটি ওয়ার্ডই ঝুকি পূর্ন বিষয়টি একাধিকবার উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষকে জানানো হয়েছে। আমরা রোগীদেরও বলি যে এখানে থাকা ঝুকিপূর্ণ তারপরও রোগীদের অনুরোধে ওই ওয়ার্ডে আমাদের রোগী ভর্তি করতে হয়।
বাগেরহাটের সিভিল সার্জণ ডা. জিকেএম সামসুজ্জামান বলেন, স্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরের প্রকৌশলীরা ঘটনাস্থল পরিদর্শণ করেছে। তারা ভবনটির ব্যবহার বন্ধের সুপারিশ করেছেন। আমরা ভবনটি যাতে আর ব্যবহার না হয় সে বিষয়ে কাজ শুরু করেছি।

বাগেরহাটে নিখোঁজ শিশুর মরদেহ উদ্ধার

বাগেরহাট : বাগেরহাটে নিখোজের দুই দিন পরে কল্যান পাল (১০) নামের এক শিশুর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। রবিবার (২৫ আগস্ট) বিকেলে সদর উপজেলার কার্ত্তিকদিয়া পালপাড়া গ্রামে কল্যান পালের বাড়ি থেকে একটু দূরে ঘেরের পাশের নালা থেকে মরদেহ উদ্ধার করা হয়। এর আগে শুক্রবার (২৩ আগস্ট) বিকেলে বাড়ি থেকে যাত্রাপুর বাজারে যাওয়ার পথে নিখোজ হয় কল্যান পাল। ওই দিন রাতেই কল্যাণের নানা সুব্রত কুমার পাল বাগেরহাট সদর থানায় একটি সাধারণ ডায়েরী করেন।
কল্যান পাল সদর উপজেলার কার্ত্তিকদিয়া পালপাড়া গ্রামের কমল কৃষ্ণ পালের ছেলে এবং স্থানীয় সাজ্জাদ কাদের আইডিয়াল স্কুলের চতুর্থ শ্রেণির ছাত্র।
কল্যান পালের নানা সুব্রত কুমার পাল বলেন, ২৩ আগস্ট বিকেলে জন্মষ্ঠমির অনুষ্ঠানে যাওয়ার কথা বলে আর বাড়ি ফেরেনি কল্যান। পরে অনেক খোজাখুজি করে না পেয়ে আমি রাতে একটি সাধারণ ডায়েরী করি। রবিবার বিকেলে বাড়ির থেকে এক কিলোমিটার দূরে একটি নালার মধ্যে ঘাষ কাটতে গিয়ে একনারী কল্যানের মরদেহ দেখতে পেয়ে চিৎকার করে। পরে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখি এটা কল্যাণের মরদেহ । কল্যাণের গলায় একটি ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে।
বাগেরহাটের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মাহফুজ আফজাল বলেন, খবর শুনে আমরা শিশুটির মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। তার গলায় ধারালো বস্তুর আঘাত রয়েছে। হত্যার কারণ জানতে পুলিশ তদন্ত শুরু করেছে।

কেশবপুরের ত্রিমোহিনীতে বঙ্গবন্ধুর শাহাদাৎ বার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা

রাজীব চৌধুরী, কেশবপুরঃ ১৫ ই আগস্ট জাতির জনক শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৪ তম শাহাদাৎ বার্ষিকী উপলক্ষে ০১ নং ত্রিমোহিনী ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের আয়োজনে আলোচনা সভা ও দোয়া অনুষ্ঠিত হয় । উক্ত আলোচনা সভা ও দোয়া অনুষ্ঠানের পরিচালনায় ছিলেন এস.এম. আনিছুর রহমান আনিছ (চেয়ারম্যান) অত্র ইউনিয়ন । সভাপতিত্ব করেন শেখ আব্দুল মান্নান মাষ্টার, প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কেশবপুর উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আলহাজ্জ্ব কাজী রফিকুল ইসলাম, বিশেষ অতিথি হিসেবে ছিলেন বিশ্বাস শহিদুজ্জামান শহিদ (আহবায়ক কেশবপুর উপজেল যুবলীগ), আবু সাঈদ লাভলু যুগ্ম আহবায়ক কেশবপুর উপজেলা যুবলীগ, কাজী আজহারুল ইসলাম (মানিক) আহবায়ক কেশবপুর উপজেলা ছাত্রলীগ । এছাড়া আরো উপস্থিত ছিলেন ০১ নং ত্রিমোহিনী ইউনিয়ন যুবলীগের আহবায়ক ওয়াহেদুজ্জামান মিন্টু, যুগ্ম আহবায়ক আনোয়ারুল ইসলাম রাজু, যুবলীগের সদস্য আল আমিন ও সকল ইউপি. সদস্য । আলোচনা অনুষ্ঠান ও দোয়া মাহফিলে বঙ্গবন্ধুর আত্মার মাগফিরাত কামনা করা হয় ।

সাগরে ইলিশ ধরা পড়লেও নদীতে দেখা মিলছেনা

ঢাকা অফিস : সাগরে ঝাঁকে ঝাঁকে ইলিশ ধরা পড়লেও সুস্বাদু ইলিশের জন্য প্রসিদ্ধ মেঘনা-তেতুঁলিয়া নদীতে ইলিশের দেখা মিলছেনা।

ভরা মৌসুমে নৌকা-ট্রলার বোঝাই করে ইলিশ ধরায় আশায় নদীতে গিয়ে ২-৪ হালি ইলিশ ফিরে আসছেন নিয়েশিকারীরা। এতে ট্রলারের তেল সহ দৈনিক খরচ মিটলেও মহাজনের দাদন পরিশোধ করে পরিবারে স্বাচ্ছন্দ্য ফিরে আনা সম্ভব হচ্ছে না। এদিকে নদীর প্রবেশ পথে ডুবোচরের কারণে ইলিশ গতিপথ পরিবর্তন করেছে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। তবে এখনও প্রত্যাশিত ইলিশ পাওয়ার আশাবাদ মৎস্যবিভাগের।

জেলেদের তথ্য অনুযায়ী, স্বাভাবিক সময়ের মতো ইলিশ পাওয়া গেলেও ভরা মৌসুমে ইলিশের কোন লক্ষণ নেই। তারপরও ইলিশের ঝাঁক ধরার আশায় প্রতিদিন তারা নদীতে ছুটছেন আর হতাশা হয়ে ফিরছেন। জেলেদের মতো বছরের এ সময়ের অপেক্ষায় থাকেন ব্যবসায়ীরাও। প্রত্যাশিত ইলিশ না পাওয়ায় তারা এখন পুঁজি হারানোর শঙ্কায়।

নদীর প্রবেশ পথে ডুবোচরের কারণে ইলিশের গতিপথ পরিবর্তন হয়েছে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। দেড়িতে হলেও  প্রত্যাশিত ইলিশের দেখা মিলবে বলে আশাবাদ জানান ভোলা জেলা মৎস্য কর্মকর্তা এস এম আজহারুল ইসলাম বলেন, জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে ইলিশের মৌসুমেও পরিবর্তন এসেছে।

এ বছর জেলায় ১ লাখ ৬০ হাজার মে.টন ইলিশের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। গত জুলাই ও চলতি আগস্ট মাসের ১৫ তারিখ পর্যন্ত প্রায় ১০ হাজার মেট্রিক টন ইলিশ ধরা পড়েছে।

রোহিঙ্গা ঢলের দুই বছর

ঢাকা অফিস : আজ ২৫শে আগস্ট। ঠিক দুই বছর আগে ২০১৭ সালের এই দিনে সেনা চৌকিতে হামলা করে সশস্ত্র রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীরা। এ হামলার পর মিয়ানমারের সেনাবাহিনী অভিযান চালিয়ে রোহিঙ্গাদের হত্যা, ধর্ষণ এবং গ্রামের পর গ্রাম জ্বালিয়ে দিতে শুরু করে। জীবন বাঁচাতে বাংলাদেশে আসতে শুরু করে রোহিঙ্গারা। এর পর পার হলো দুইটি বছর, এই দুই বছরে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের অসহায় অবস্থার অনেকটাই পরিবর্তন হয়েছে।

২০১৭ সালের ২৫ আগস্ট হামলার পর দেশটির নিরপত্তা বাহিনী রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে যে অভিযান শুরু করে তাতে সাড়ে ৭ লাখের বেশি রোহিঙ্গা বাংলাদেশে পালিয়ে আসে।

জাতিসংঘের তদন্তকারীরা বলেছেন, সেনা অভিযানে গণহত্যা, গণধর্ষণ হয়েছে এবং তা রোহিঙ্গা জাতিকে নিশ্চিহ্ন করার পরিকল্পনা থেকেই করা হয়েছে। সেনাবাহিনী প্রায় সব রোহিঙ্গা শরণার্থীর সব অভিযোগই অস্বীকার করে বলে আসছে, এটা ছিল সন্ত্রাসবিরোধী বৈধ ও আইনসম্মত অভিযান।

এরই মধ্যে গত বৃহস্পতিবার, ৩ হাজার ৪৫০ জন রোহিঙ্গার প্রত্যবাসন তৃতীয়বারের মতো ব্যর্থ হয়। কারণ, রোহিঙ্গারা মিয়ানমার ফিরতে নারাজ। প্রত্যাবাসন শুরু করতে দুই দফা দিনক্ষণ নির্ধারণ করা হলেও তা ব্যর্থ হয়েছে। উপযুক্ত নিরাপত্তা নেই বলে নিজ দেশ মিয়ানমারে ফিরতে অনীহা জানিয়েছে রোহিঙ্গারা। যদিও, মিয়ানমারের সমাজকল্যাণ মন্ত্রণালয়ের পরিচালক মিন থেইন বলেন, ফিরে আসা রোহিঙ্গাদের নিরাপত্তায় সব ব্যবস্থাই নেয়া হয়েছে, পুলিশ তাদের পাহারা দেবে। যদিও এ বিষয়ে সেনাবাহিনীর একজন মুখপাত্রকে ফোন করেও পাওয়া যায়নি বলে জানিয়েছে রয়টার্স।

এদিকে, দিনটিকে ব্যাপক আকারে পালন করতে রোহিঙ্গারা নানা কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। গত বছরও রোহিঙ্গারা ক্যাম্পগুলোতে তাদের পলায়নের প্রথম বার্ষিকী উদযাপন করেছিল। জাতিসংঘের কিছু সংস্থা ও দেশী বিদেশী এনজিওগুলোর সহযোগিতায় এবারের বর্ষপূর্তি উদযাপন ভিন্ন মাত্রা যোগ হবে বলে জানা গেছে। কারণ তারা সমম্বিতভাবে গত ২২ আগস্টের রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন পরিকল্পনা বানচাল করতে সক্ষম হয়েছে।

জানা গেছে, ৩২টি ক্যাম্পে গত ১৫ দিন ধরে রোহিঙ্গা নেতারা ডোর টু ডোর কাজ করেছে। তারা সব ক্যাম্পে ২৫ আগস্ট ব্যাপকভাবে পালনে সাধারণ রোহিঙ্গাদের সম্পৃক্ত করতে উদ্বুদ্ধকরণ সভা সমাবেশ করেছে। রোহিঙ্গাদের দেশি বিদেশি কিছু সংগঠনের নির্দেশনা ও পরিকল্পনা অনুযায়ী ক্যাম্পগুলোতে রোহিঙ্গা নেতা ও মাঝিরা দিবসটি পালনে অধিক তৎপরতা চালাচ্ছে।

প্রসঙ্গত, রোহিঙ্গার প্রত্যবাসন তৃতীয়বারের মতো ব্যর্থ হওয়ার জন্য মিয়ানমারের অসহযোগিতাকে দায়ী করছে বাংলাদেশ, তবে কূটনৈতিক তৎপরতা অব্যাহত আছে। উখিয়া ও টেকনাফে স্থানীয় লোকের সংখ্যা পাঁচ লাখের কিছু বেশি হলেও সেখানে রোহিঙ্গার সংখ্যা ১৩ লাখের বেশি।

মাহী বি চৌধুরীকে দুদরে জিজ্ঞাসাবাদ

ঢাকা অফিস : যুক্তরাষ্ট্রে অর্থ পাচারের অভিযোগে বিকল্পধারার যুগ্ম মহাসচিব সংসদ সদস্য এবং বিকল্পধারার প্রেসিডিয়াম সদস্য মাহী বি চৌধুরীকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে দুর্নীতি দমন কমিশন, দুদক।

এর আগে, দুদকের জিজ্ঞাসাবাদে হাজির না হওয়ায় মাহী বি চৌধুরী ও তার স্ত্রী আশফাহ হক লোপাকে ২৫শে আগস্ট ফের তলব করে দুদক।

এর আগে, গত রবিবার (৪ই আগস্ট) মাহী বি চৌধুরী ও তার স্ত্রীকে দুদকের প্রধান কার্যালয় থেকে তাদের ঠিকানায় জিজ্ঞাসাবাদে হাজির হওয়ার জন্য তলবি নোটিশ পাঠানো হয়। দুদকের উপ-পরিচালক জালাল উদ্দিনের সই করা আলাদা নোটিশে এ দম্পতিকে ৭ই আগস্ট সকাল ১০টায় সেগুনবাগিচায় দুদকের প্রধান কার্যালয়ে হাজির হতে বলা হয়।

যুক্তরাষ্ট্রে শতকোটি টাকা পাচারের অভিযোগে মাহী বি চৌধুরী ও তার স্ত্রী লোপার বিরুদ্ধে অনুসন্ধান শুরু করেছে দুদক। অভিযোগে বলা হয়েছে, মাহী ও তার স্ত্রী লোপা বিভিন্ন সময়ে শত কোটি টাকা আমেরিকায় পাচার করেছেন, অজ্ঞাত খাত থেকে আয়ের টাকা কৌশলে বিদেশে নিয়ে গেছেন।

বিএনপির শাসনামল ও বিভিন্ন সময়ে ক্ষমতার অপব্যবহারের করে তারা অবৈধ অর্থের মালিক হয়েছেন বলে দুদকে আসা অভিযোগে বলা হয়েছে। এসব অভিযোগ দুদকে এলে প্রাথমিকভাবে যাচাই-বাছাই করে অনুসন্ধানের সিদ্ধান্ত নেয় সংস্থাটি।