তাবলিগ জামাতের আমির মাওলানা সাদ করোনায় আক্রান্ত!

আন্তর্জাতিক : তাবলিগ জামাতের আমির মাওলানা সাদ কান্ধলভি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। ভারতের আনন্দবাজার পত্রিকা খবর প্রকাশ করেছে যে, ভারতীয় গোয়েন্দা পুলিশ ধারণা করছে মাওলানা সাদ করোনায় আক্রান্ত। বুধবার (১লা এপ্রিল), মওলানা সাদের নামে যে দু’টি অডিও প্রকাশ্যে এসেছে তা সে দিকে ইঙ্গিত করছে বলে তাদের ধারণা। মারকাজ ইউটিউব চ্যানেলে বুধবার সাদের দুটি অডিও ক্লিপস প্রকাশ করা হয়। এর একটিতে সাদ দাবি করেন, করোনাভাইরাস তার অনুসারীদের কোনো ক্ষতি করতে পারবে না। মৃত্যুর জন্য মসজিদই সর্বোত্তম স্থান বলে মন্তব্য করেন তিনি। পরের অডিও ক্লিপসে তিনি তাবলিগের সাথীদের করোনা প্রতিরোধে সরকারি নির্দেশনা মেনে চলতে এবং জনসমাবেশ এড়িয়ে চলার আহ্বান জানান।

সাদ এই অডিও ক্লিপসে আরও জানান, তিনি দিল্লিতেই রয়েছেন। এক চিকিৎসকের পরামর্শ মেনে এখন আইসোলেশনে রয়েছেন।

সরকারি নির্দেশনা অমান্যের অভিযোগে বুধবার সাদ ও তার সাত অনুসারীর বিরুদ্ধে মামলা করেছে দিল্লি পুলিশ। এরইমধ্যে মাওলানা সাদকে ধরতে ইতিমধ্যেই লখনউ, মুজফফরনগরসহ বিভিন্ন এলাকায় দিল্লি ক্রাইম ব্রাঞ্চ তল্লাশি করছে। ২৮শে মার্চ থেকে খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না মাওলানা সাদের। দিল্লি পুলিশের দল উত্তরপ্রদেশের মুজাফফরনগরেও গিয়েছে তার অনুসন্ধানে। দিল্লিতেও তার খোঁজে তল্লাশি চলছে। এছাড়া সাদ কোনো হাসপাতালে রয়েছেন কিনা জানতে ১৪টি হাসপাতালে পুলিশ যোগাযোগ করেছে।

মার্চের মাঝামাঝি দিল্লির নিজামউদ্দিন মারকাজে ইজতেমার আয়োজন করেছিলেন সাদ ও তার অনুসারীরা। ওই ইজতেমায় অংশ নেওয়া ১২৮ জনের শরীরে করোনা সংক্রমণ ধরা পড়ে। এদের মধ্যে সাত জনের মৃত্যু হয়েছে। ধারণা করা হচ্ছে অন্তত ৪০০ জন করোনা আক্রান্তের যোগসূত্র রয়েছে এই ইজতেমার সঙ্গে।

ঠাকুরগাঁওয়ে বিএসএফ’র গুলিতে বাংলাদেশি নিহত

ঠাকুরগাঁও প্রতিনিধি : ঠাকুরগাঁওয়ের চোষপাড়া সীমান্তে মো: জয়নাল (৪৮) নামে এক বাংলাদেশিকে গুলি করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)’র বিরুদ্ধে ।
বুধবার রাতে বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার বড়বাড়ি ইউনিয়নের চোষপাড়া সীমান্তে এঘটনা ঘটে।
নিহত জয়নাল রাণীশংকৈল উপজেলার নন্দুয়ার ইউনিয়নের ভাংবাড়ি গ্রামের বাসিন্দা সমিরুদ্দীনের ওরফে মাঝিলের ছেলে।
স্থানিয়দের বরাত দিয়ে রাণীশংকৈল নন্দুয়ার ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান জমিরুল ইসলাম জানান, জয়নাল দীর্ঘ কয়েকবছর যাবত ভারতে বসবাস করছিলেন। সেখানে তিনি শ্রমিকের কাজ করতেন। বাংলাদেশে নিজ গ্রামে তার স্ত্রী , সন্তান রয়েছে এবং ভারতেও তার দ্বিতীয় স্ত্রী এবং তার পরিবার রয়েছে। বুধবার রাতে জয়নাল ভারত থেকে বাংলাদেশে আসার উদ্দ্যেশে অবৈধভাবে বালিয়াডাঙ্গীর চোষপাড়া সীমান্ত পিলার ও তারকাটা অতিক্রম করে। এসময় ভারতের উত্তর দিনাজপুর জেলার গোয়াল পুকুর থানার চাঁকলাগড় ক্যাম্পের বিএসএফ জোয়ানরা তাকে লক্ষ করে গুলি ছুড়লে জয়নাল গুলিবিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই নিহত হয়।
বৃহস্পতিবার সকালে ঘটনাস্থলে তারকাটার পাশে স্থানীয় গ্রামবাসি দূর থেকে তার মৃতদেহ পড়ে থাকতে দেখে বিজিবি ক্যাম্পে খবর দেয়।
এ বিষয়ে ঠাকুরগাঁও ৫০ বিজিবির অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল শহিদুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন। তিনি জানান, সীমান্তে হত্যা বন্ধের বিষয়ে প্রতিবাদ জানিয়ে বিজিবির পক্ষ থেকে বিএসএফকে পতাকা বৈঠকের পত্র দেয়া হয়েছে।

কেশবপুরে কর্মহীনদের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ

কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি : যশোরের কেশবপুরে করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় লকডাউনে কর্মহীন মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা হয়েছে। কেশবপুর উপজেলা প্রেসক্লাব কার্যালয়ে বৃহস্পতিবার সকালে করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় লকডাউনে কর্মহীন মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেন কেশবপুর উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি এস আর সাঈদ।
উল্লেখ্য, কেশবপুরে করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় লকডাউনে শ্রমজীবি, ক্ষুদ্র ব্যাবসায়ী, ভ্যান চালক, চা বিক্রেতা-সহ অসংখ্য মানুষ কর্মহীন হয়ে পড়েছে। ইতিমধ্যে উপজেলা প্রশাসন, পৌরসভার মেয়র, ১১টি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্যরা সরকারিভাবে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছে। তাছাড়া পৌরসভার নিজস্ব অর্থায়নে ও কেশবপুরের কৃতি সন্তান ডাক্তার হাসনাত আনোয়ারও খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন। যা প্রয়োজনের তুলনায় খুবই কম। তবে অসংখ্য কর্মহীন মানুষের মাঝে আরো খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করা প্রয়োজন।

কেশবপুরে জমি সংক্রান্ত বিরোধে হামলা

কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি : যশোরের কেশবপুর উপজেলার কোমরপোল গ্রামে জমি সংক্রান্ত বিরোধে হামলায় দু’ভাই আহত হয়ে কেশবপুর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে। কেশবপুর থানা বরাবর লিখিত অভিযোগ সূত্রে জানাগেছে, উপজেলার কোমরপোল গ্রামের ভুন্ডল দাসের সাথে প্রতিবেশি রবিন দাস গংদের সাথে জমি ও বিভিন্ন বিষয়ে বিরোধ চলে আসছিল। তারই জের ধরে ৩১ মার্চ ভোরে রবিন দাস, মন্টু দাস, মান্দার দাস, ফুলচান দাস, সোনা দাস সংগবদ্ধ হয়ে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে বাশের লাঠি, লোকার রড-সহ দেশীয় অস্ত্রে সজ্জিত হয়ে ভুন্ডল দাস ও তার ভাই শ্যামা দাসের উপর হামলা চালায়। ভুন্ডল দাস ও শ্যামা দাসের আত্নচিৎকারে অপর প্রতিবেশিরা এগিয়ে আসলে তারা আরো মারপিট ও খুন জখমের হুমকী দিয়ে চলে যায়। মারাত্নক আহতাবস্থায় ভুন্ডল দাস (৫০) ও শ্যামা দাস (৪০) কে কেশবপুর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এব্যাপারে ভুন্ডল দাসের স্ত্রী ফুলঝুরি দাসী বাদী হয়ে কেশবপুর থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে।
উল্লেখ্য রবিন দাস গং ইতিপূর্বেও ভুন্ডল দাস গংদের উপর হামলা চালিয়েছিল।

২৪ ঘন্টায় দেশে নতুন করোনা আক্রান্ত শনাক্ত ২

ঢাকা অফিস : ২৪ ঘন্টায় ১৪১ জনের নমুনা পরীক্ষা করে বাংলাদেশে নতুন দুই জন করোনাভাইরাস আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন; আইইডিসিআর।

আজ বৃহস্পতিবার স্বাস্থ্য অধিদফতরের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠানের (আইইডিসিআর) করোনাভাইরাস সংক্রান্ত অনলাইন ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানানো হয়।

অনলাইন ব্রিফিংয়ে এসে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের এমআইএস শাখার পরিচালক ডা. হাবিবুর রহমান জানান, গত ২৪ ঘণ্টায় ১৪১ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে। এর মধ্যে দুইজনের শরীরে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। এতে দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫৬ জনে। তবে নতুন কারও মৃত্যু হয়নি বলে জানিয়েছে আইইডিসিআর।

তিনি জানান, নতুন আক্রান্ত দুজনই পুরুষ। তাদের একজনের বয়স ৩০ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে। আল অন্যজনের বয়স ৭০ থেকে ৮০ বছর বয়সের মধ্যে। এছাড়া, ২৪ ঘন্টায় নতুন করে আইসোলেশনে গেছেন পাঁচজন। বর্তমানে ৭৮জন আইসোলেশনে আছেন।

ব্রিফিংয়ে জানানো হয়, গত ২৪ ঘন্টায় ৪০১ জন দেশে প্রবেশ করেছেন এবং তাদের সবাইকে স্ক্রিনিং করা হয়েছে। কোভিড-১৯ চিকিৎসার জন্য ১২ হাজার ৪৮ জন চিকিৎসক প্রশিক্ষণ নিয়েছেন। পর্যাপ্ত পিপিই মজুদ আছে বলেও জানানো হয়।

প্রধানমন্ত্রী বিশেষ নির্দেশনা পাওয়ার কথা জানিয়ে ব্রিফিয়ে বলা হয়, প্রত্যেকটি উপজেলায় আজ থেকে কমপক্ষে ২টি নমুনা পরীক্ষা করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে।

গত ৮ই মার্চ বাংলাদেশে প্রথম করোনাভাইরাস শনাক্ত হওয়ার আনুষ্ঠানিক ঘোষণা আসে। এরপর ১৮ই মার্চ প্রথম ব্যক্তির মৃত্যুর কথা জানায় আইইডিসিআর।

মোল্লাহাটে ভ্রাম্যমাণ আদালতে ১৪ জনের অর্থদন্ড

মোল্লাহাট (বাগেরহাট) প্রতিনিধিঃ করোনা ভাইরাসের প্রাদুর্ভাব হতে সকলকে রক্ষায় সরকার কর্তৃক গৃহীত সিদ্ধান্ত / আদেশ অমান্য করে অকারণে (জরুরী প্রয়োজন ছাড়া) চলা-চল করায় ১৪ ব্যক্তির নগদ আট হাজার টাকা অর্র্থদন্ড করেছে ভ্রাম্যমাণ আদাল। গতকাল বৃহস্পতিবার মোল্লাহাট এলাকার মহা-সড়ক, দেড়বোয়ালিয়া ও গাংনী বাজারসহ বিভিন্ন এলাকা ঘুরে এ দন্ড দেয় ভ্রাম্যমাণ আদালত। আদালত পরিচালনা করেন সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট অনিন্দ্য মন্ডল।

মোংলায় কেসিসি মেয়রের খাদ্য সামগ্রী বিতরণ

মোংলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি : খুলনা সিটি করপোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব তালুকদার আব্দুল খালেক মোংলায় করোনায় কর্মহীন হয়ে পড়া দরিদ্র পরিবারের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছেন। পৌর কর্তৃপক্ষের আয়োজনে বৃহস্পতিবার দুপুর আড়াইটার দিকে স্থায়ী বন্দরের পাওয়ার হাউজ এলাকায় ১শ পরিবারের হাতে এ খাদ্য সামগ্রী তুলে দেন কেসিসি মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক।
এ সময় মোংলা পোর্ট পৌরসভার মেয়র আলহাজ্ব মো: জুলফিকার আলী, উপজেলা চেয়ারম্যান আবু তাহের হাওলাদার, ভাইস চেয়ারম্যান ইকবাল হোসেন, পৌর আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ আ: রহমান, পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো: আ: রাজ্জাক, বন্দর সিবিএ’র সভাপতি মো: সাইজউদ্দিন মিয়া ও সাধারণ সম্পাদক মো: ফিরোজসহ অন্যান্যরা উপস্থিত ছিলেন।

মোল্লাহাটে আত্নীয়র বাড়িতে হামলা : জখম ৪

মোল্লাহাট (বাগেরহাট) প্রতিনিধি : মোল্লাহাটে পূর্ববিরোধের জেরে ভাড়াকরে লোক এনে আত্নীয়ের বাড়িতে হামলা করে একই পরিবারের মহিলা-পুরুষ চার জন’কে যখম করা হয়েছে। উপজেলার চর দারিয়ালা গ্রামে গত বুধবার বিকাল সাড়ে ৫টার দিকে হিরু শেখের বাড়িতে এ হামলার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ওই গৃহকর্তা শেখ (৫৫), স্ত্রী হাসি (৪৫), ছেলে আলিম শেখ (২২) ও মেয়ে ডলিয়া (১৮) যখম হয়েছে। যখমিদের’কে গোপালগঞ্জ সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এছাড়া মোল্লাহাট থানায় অভিযোগ হয়েছে।
অভিযোগ ও ভিকটিম পরিবার সুত্রে জানাযায়-হামলার শিকার হিরু শেখ ও তার আপন বোনের ছেলে দুবাই প্রবাসী মোঃ ঠান্ডু শেখের বাড়ি পাশা-পাশি। সম্প্রতি হিরু শেখের পরিবারের সাথে ঠান্ডু শেখের স্ত্রী লিজা বেগমের ঝগড়া হয়। উক্ত ঝগড়ার জেরে লিজা বেগম তার পিতার বাড়ি প্রায় ৭কিলোমিটার দুরের চরকুলিয়া থেকে ১৫/২০ জন’কে ভাড়া করে এনে হিরু শেখের বাড়িতে অতর্কিত হামলা চালায়। হামলাকারীরা ওই বাড়িতে ছিনতাই ও লুট-পাট করে বলেও জানান যখমীরা। তারা এঘটনার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করেন।
এবিষয়ে মোল্লাহাট থানা অফিসার ইনচার্জ কাজি গোলাম কবীর বলেন-তিনি যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করবেন।

করোনায় কর্মহীন ৩শ পরিবারকে খাদ্য সামগ্রী দিয়েছে নৌবাহিনী

মোংলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি : করোনাভাইরাস সংক্রমণ রোধে মোংলায় ঘরে থাকা নিম্ন আয়ের মানুষের মাঝে খাদ্য সামগ্রী বিতরণ করেছে নৌবাহিনী। বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় নৌবাহিনীর মোংলা এনক্স চত্বরে ৩শ অসহায় পরিবারের হাতে এ খাদ্য সামগ্রী তুলে দেন খুলনা নৌঅঞ্চলের আঞ্চলিক কমান্ডার রিয়ার এডমিরাল মোহাম্মদ মুসা। এ সময় মোংলা নৌঘাঁটির অধিনায়ক ক্যাপ্টেন মইনুল, অন্যান্য নৌ কর্মকর্তা ও জেসিও’স এবং নাবিকেরা উপস্থিত ছিলেন। খাদ্য সামগ্রীর মধ্যে ছিল চাল, ডাল, তেল, চিনি, লবণ ও আলু।

দাকোপে মহিলা এমপি ঝর্ণা ও শেখ হারুনের খাদ্য বিতরন

দাকোপ প্রতিনিধি : করেনার ভাইরাসের এই দূর্যোগে দেশের কোন মানুষ যাতে খাদ্য অভাবে না থাকে সে জন্য প্রধান মন্ত্রী সকল ব্যবস্থা নিয়েছেন। তিনি দলীয় নেতা কর্মিদের নির্দেশ দিয়েছেন কেউ যাতে এই দূর্যোগের ত্রান নিয়ে অনিয়ম করতে না পারে সে জন্য আমাদের সজাগ দৃষ্টি রেখে জনতার পাশে থাকতে হবে।
বৃহস্পতিবার সকালে দাকোপের পানখালী ইউনিয়ন পরিষদে চাল বিতরন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় আ’লীগের কেন্দ্রীয় নেত্রী ও মহিলা এমপি এ্যাডঃ গ্লোরিয়া সরকার ঝর্ণা এ কথা বলেন। সরকারের দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রান মন্ত্রনালয়ের বরাদ্দে ইউনিয়নের ৩০০ পরিবারের মাঝে পরিবার প্রতি ১০ কেজি হারে এই চাল বিতরন করা হয়। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন দাকোপ উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব শেখ আবুল হোসেন, উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান খাদিজা আকতার, পানখালী ইউপি চেয়ারম্যান শেখ আব্দুল কাদের, ইউপি সদস্য শাহাবুদ্দিন মোল্যা, শেখ রফিকুল ইসলাম, খোরশেদ আলম, জ্যোতি শংকর রায়, দীপ্তি রানী বাওয়ালী, কোহিনুর বেগম বিউটি প্রমুখ।
অপরদিকে খুলনা জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি শেখ হারুনুর রশিদের উদ্যোগে দাকোপের বিভিন্ন স্থানে খাদ্য সামগ্রী বিতরন করা হয়। তিনি বিকাল ৪ টায় উপজেলা আওয়ামী লীগ কার্যালয় চত্বরে খাদ্য সামগ্রী বিতরন করেন। এরপর দাকোপের কয়েকটি স্থানে পৃথক পৃথকভাবে চাল আলুসহ খাদ্য সামগ্রী বিতরন করেন। এ সময় উপজেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি আলহাজ্ব শেখ আবুল হোসেনসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। এ ছাড়া করোনার প্রভাব থেকে মানুষকে নিরাপদ রাখতে ও জনসচেতন করতে বটবুনিয়া কলেজিয়েট স্কুলের উদ্যোগে নানা কর্মসূচী বাস্তবায়ন করা হয়। কর্মসূচীর মধ্যে বটবুনিয়া বাজারে রাস্তায় জীবানু নাশক স্প্রে করা হয়, মার্কস ও লিপলেট বিতরন এবং জনসচেতনায় মাইকিং করা হয়। এ সময় বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি নারায়ন চন্দ্র সরকার, প্রধান শিক্ষক স্বপন কুমার মহলদার, সহকারী প্রধান শিক্ষক সঞ্জয় কুমার রায়, বটবুনিয়া বাজার কমিটির সভাপতি নিত্যুরঞ্জন কবিরাজ, সাধারণ সম্পাদক মোশারেফ বিশ্বাসসহ শিক্ষক মন্ডলী ও রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।