ডুমুরিয়ায় বন্ধ জলাশয়ে মাছের পোনা অবমুক্ত

বিদেশি সিগারেট আসলো গার্মেন্টস পণ্যের ঘোষণায়

চট্টগ্রাম ব্যুরো:ঘোষণা ছিল গার্মেন্টসের কাঁচামাল, বাস্তবে দেখা গেল নিয়ে আনা হয়েছে পুরো এক কনটেইনার বিদেশি বিভিন্ন ব্রান্ডের সিগারেট। পোশাকখাতকে দেওয়া সরকারি সুবিধার অপব্যবহার করে শুল্ক ফাঁকি দিতে এমন কাণ্ডের আশ্রয় নিয়ে ঢাকার একটি প্রতিষ্ঠান। জব্দ করা সিগারেটগুলো মুন ও ৩০৩ ব্রান্ডের।

চট্টগ্রাম বন্দরে বিপুল পরিমাণ এই সিগারেট জব্দ করেছে কাস্টমসের গোয়েন্দা শাখার কর্মকর্তারা। পোশাক শিল্পের কাঁচামাল ঘোষণা দিয়ে চীন থেকে সাড়ে ১৮ মেট্রিক টন সিগারেট আমদানি করে ঢাকার সাভারের হপ-ইক লিমিটেড নামের একটি প্রতিষ্ঠান।

গত ৩ নভেম্বর পণ্য খালাসের জন্য সিঅ্যান্ডএফ এজেন্ট চট্টগ্রামের দক্ষিণ আগ্রাবাদের চান্দু করপোরেশন চট্টগ্রাম কাস্টমস হাউসে বিল অফ এন্ট্রি (সি-নং ২০০৪৮২) দাখিল করে।

জানা গেছে, তৈরি পোশাকশিল্পের জন্য দেওয়া শুল্কমুক্ত সুবিধায় পোশাকশিল্পের কাঁচামাল আমদানির কথা থাকলেও বাস্তবে পাওয়া গেছে বিদেশি বিভিন্ন ব্রান্ডের সিগারেট। বৈদেশিক মুদ্রা আহরণের সবচেয়ে বড় খাত হিসেবে তৈরি পোশাকশিল্পের কাঁচামালগুলো শুল্কমুক্তভাবে দ্রুত খালাস দেওয়া হয়।

এই সুযোগের অপব্যবহার করে পোশাকশিল্পের কাঁচামাল ঘোষণায় আমদানি করা হয় এসব সিগারেট। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কাস্টম হাউসের অডিট, ইনভেস্টিগেশন অ্যান্ড রিসার্চ টিম (এআইআর) ও কাস্টমস গোয়েন্দা শাখা একটি কন্টেইনার জব্দ করে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে চট্টগ্রাম কাস্টমসের এআইআর শাখার সহকারী কমিশনার রেজাউল করীম বলেন, ‘এ বিষয়ে মামলা দায়েরের কার্যক্রম চলমান রয়েছে। তাছাড়া এ ঘটনায় কারা জড়িত তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।’

কাস্টমসের এআইআর শাখার রাজস্ব কর্মকর্তা ইমরুল ইসলাম বলেন, ‘জব্দকৃত সিগারেটগুলো মুন ও ৩০৩ ব্রান্ডের। এগুলো গুণতে একটু সময় লাগবে। পরে জানা যাবে এখানে কী পরিমাণ সিগারেট রয়েছে এবং কী পরিমাণ শুল্ক ফাঁকির চেষ্টা করা হয়েছিল।’

চট্টগ্রামে অস্ত্রসহ দুই সন্ত্রাসী ধরা

চট্টগ্রাম ব্যুরো:চট্টগ্রাম নগরীতে অস্ত্রসহ দুই সন্ত্রাসীকে গ্রেপ্তার করেছে আকবরশাহ থানা পুলিশ। গ্রেপ্তার দুই সন্ত্রাসী হলো মো. রবিউল ইসলাম (২৮) এবং মো. রবিন (২০)।

বুধবার (১১ নভেম্বর) রাত সাড়ে তিনটায় আকবরশাহ থানার বড় গ্যাসলাইন মিরপুর আবাসিক এলাকা থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। এ সময় দুইজনের কাছে পাওয়া যায় একটি এলজি, একটি পাইপগান, একটি চাপাতি, তিনটি কিরিচ ও দুটি ছুরি।

বিষয়টি নিশ্চিত করে আকবরশাহ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. জহির হোসেন গণমাধ্যমকে জানান, বুধবার রাতে অস্ত্রসহ দুই সন্ত্রাসীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গ্রেপ্তার রবিউলের বিরুদ্ধে আমাদের থানায় এর আগেও অস্ত্র আইনে মামলা রয়েছে।

অস্ত্র আইনে মামলা দায়ের করে দুইজনকে আদালতে সোপর্দ করলে আদালত কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন বলেও জানান ওসি জহির।

ফুলতলায় ছাত্রলীগের মাস্ক বিতরণ

ফুলতলা (খুলনা) প্রতিনিধিঃ খুলনা জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি পারভেজ হাওলাদারের পক্ষ থেকে ফুলতলা উপজেলা ছাত্রলীগের উদ্যোগে বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় দলীয় কার্যালয়ের সামনে মাস্ক বিতরণ করা হয়। এ সময় অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন নূর আল আমিন, খুলনা জেলা ছাত্রলীগ নেতা ফারনিম মোহাম্মদ ফরহাদ, উপজেলা ছাত্রলীগ নেতা উজ্জল কুমার খা শান্ত, হৃদয়, সুখ, অভি, প্রান্ত, সুমন, তাহের আলামিন বিশ্বাস, জুয়েল বিশ্বাস, হৃদয় সরদার, তানভীর সরদার, আব্রা সরদার প্রমুখ।

চট্টগ্রামে বেসরকারি হাসপাতাল সিলগালা, মালিক গ্রেপ্তার

চট্টগ্রাম ব্যুরো:লাইসেন্স নবায়ন না করা ও মেয়াদোত্তীর্ণ ওষুধ ব্যবহারসহ নানা অনিয়মের অভিযোগে চট্টগ্রামের বেসরকারি হাসপাতাল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

বুধবার রাতে চট্টেশ্বরী এলাকায় মোহাম্মদ হারুনের মালিকানাধীন সিটি হেলথ ক্লিনিকে চকবাজার থানা পুলিশকে নিয়ে অভিযান চালান চট্টগ্রাম জেলা সিভিল সার্জন সেখ ফজলে রাব্বী।

গণমাধ্যমকে তিনি বলেন, ওই ক্লিনিকের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ রয়েছে। ছয়মাস আগে ওই ক্লিনিকে একজন নারী অবৈধভাবে গর্ভপাত ঘটাতে গিয়ে মারা যায়। এ ঘটনায় আদালতে একটি মামলা রয়েছে।

“এছাড়া ওই হাসপাতালের নার্সদের ডিপ্লোমা কোন ডিগ্রি নেই। রাতের পালায় কোন কর্তব্যরত কোন চিকিৎসক থাকে না। তাদের লাইসেন্স খাকলেও তা নবায়ন করা ছিল না। মেয়াদোত্তীর্ণ ওষুধও সেখানে পাওয়া গেছে।”

অভিযানের ক্লিনিকটি সিলগালা করে দেওয়া হয়েছে বলে জানান তিনি।

চট্টগ্রাম মহানগর পুলিশের উপকমিশনার (ডিসি) মেহেদী হাসান গণমাধ্যমেকে বলেন, কিছুদিন আগে হাসপাতালটিতে অবৈধ গর্ভপাত ঘটাতে গিয়ে অপ্রশিক্ষিত নার্সের হাতে এক তরুণীর মৃত্যু হয়। বিষয়টি কাউকে না জানিয়ে পরিবারের মাধ্যমে তারা লাশ দাফন করে ফেলে।

“পরে মেয়েটির বাবার অভিযোগের প্রেক্ষিতে ওই ছেলেটিকে গ্রেপ্তার করা হয়। সে আদালতে জবানবন্দি দিয়েছে। এরপর তদন্ত করে হাসপাতালের দোষ খুঁজে পাওয়া যায়।”

এ ঘটনায় দুই নার্স ও মালিক মোহাম্মদ হারুনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বলে তিনি জানান।