খুলনার তিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান সরকারিকরণের দাবি

খুলনা : খুলনার তিনটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের দাবিতে নানা কর্মসূচি পালন করেছে প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক-শিক্ষার্থী, অভিভাবক ও ম্যানেজিং কমিটির সদস্যরা। শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলো হচ্ছে হাজী আব্দুল মালেক ইসলামিয়া কলেজ, খুলনা আলিয়া মাদরাসা ও শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজ। গতকাল বৃহস্পতিবার প্রতিষ্ঠানগুলো মানববন্ধন ও বিভাগীয় কমিশনারের নিকট স্মারকলিপি পেশ করে।

বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় খুলনা প্রেসক্লাবের সামনেহাজী আ: মালেক ইসলামিয়া কলেজকে সরকারিকরনের দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়। কলেজের ভারপ্তাপ্ত অধ্যক্ষ মোসা: আফরোজা বেগম এর সভাপতিত্বে খুলনা-২ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মিজানুর রহমান মিজান উপস্থিত হয়ে এ শিক্ষক-কর্মচারীদের দাবির সাথে একাত্বতা প্রকাশ করেন এবং কলেজটিকে সরকারিকরণের জন্য প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃষ্টি আকর্ষণ করেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন ও বক্তব্য রাখেন কলেজ পরিচালনা পর্ষদের সদস্য এস এম আসাদুজ্জামান রাসেল, শেখ ফারুক হোসেন, এস এম কামাল হোসেন, শশাংক মল্লিক, তরুন কান্তি সিংহ, শেখ এমদাদুল হক, অধ্যাপক আসিফ ইকবাল, বিষ্ণুপদ রায়, এস এম আরিফুজ্জামান অপু, গোলাম কিবরিয়া, এস এম সোহেল ইসহাক, শামীম শেখ, এফ এস ইয়াসিন আরা, মো: রুহুল আমিন মোড়ল, আব্দুর রউফ, কালিদাস মহলদার, শেখ সিরাজুল ইসলাম, পিজুস সরকার, রুপক রায়, ছাত্রনেতা রুমান আহম্মেদ, সাব্বির রহমান, ইয়াসিন আরাফাত, শফিকুল ইসলাম প্রমুখ।

এদিকে দুপুর ১২টায় শহীদ সোহরাওয়ার্দী কলেজটি সরকারিকরণের জন্য প্রধানমন্ত্রী বরাবর বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়ার নিকট স্মারকলিপি প্রদান করেন কলেজের শিক্ষকরা। এসময় বিভাগীয় কমিশনার শিক্ষকদের উদ্দেশ্যে বলেন, শিক্ষকরাই দেশ ও জাতির পথ প্রদর্শক। তারাই আগামী দিনের দেশের কর্নধারদের গড়ে তোলার গুরুদায়িত্ব পালন করছেন। তিনি শিক্ষকদের স্ব স্ব দায়িত্ব যথাযথ ভাবে পালন এবং মাদকমুক্ত সমাজ গঠনে জোরালো ভূমিকা রাখার আহবান জানান।

এ সময় অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার ফারুক হোসেন, কলেজ অধ্যক্ষ মাধব চন্দ্র রায়, উপাধ্যক্ষ জিনাত জাহান চৌধুরী, অধ্যাপিকা মীরা পোদ্দার, অধ্যাপক শেখ দিদারুল আলম, মোজাহিদুল ইসলাম, শেখ আসাদউল্লাহ, আতারুল ইসলাম, আজিজুল ইসলাম, ইমরান হোসেন, আয়েশা আবুবক্কার, আকলিমা খাতুন, শেখ রায়হান উদ্দীন, মনিরুজ্জামান মোড়ল, মোঃ সুজা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

অপরদিকে খুলনা আলিয়া মাদরাসা সরকারিকরণের দাবিতে বিকাল ৩টায় প্রধানমন্ত্রী বরাবর বিভাগীয় কমিশনার লোকমান হোসেন মিয়ার নিকট স্মারকলিপি পেশে করেন মাদরাসার শিক্ষক ও কর্মচারীরা। এসময় শিক্ষকরা মাদরাসাটি সরকারিকরণে স্থানীয় রাজনীতিকের পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে আবেদন জানান।

আপনার মতামত জানানঃ