ঝালকাঠিতে চোরকে ধরে গণধোলাই দিল জনতা

ঝালকাঠি প্রতিনিধি: ঝালকাঠিতে চুরির অভিযোগে এক ব্যক্তিকে গণধোলাইয়ের পর পুলিশে দিয়েছে গ্রামবাসী : গুরুতর জখম হয়ে অভিযুক্ত ব্যক্তি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বুধবার দিবাগত রাত ৩ টায় চুরির অভিযোগে এক ব্যক্তিকে আটক করেছে গ্রামবাসী। পরে তাকে গণধোলাই দিয়ে গুরুতর যখম করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে। বৃহস্পতিবার শেষ রাতে সদর উপজেলার কীস্তাকাঠি গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। গুরুতর আহত অবস্থায় অভিযুক্ত মেহেদী হাসান বাবুল নামের ওই ব্যক্তিকে বরিশাল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। আহত বাবুল ঝালকাঠির রাজাপুর উপজেলার মনহরপুর গ্রামের আফসার উদ্দিনের ছেলে। পুলিশ ও এলাকাবাসী জানায়, রাত তিনটার দিকে গ্রামের আব্দুল মান্নান হাওলাদার ও নান্না হাওলাদারে বাড়ি সিঁদ কেটে একদল সংবদ্ধ চোর ঘরে প্রবেশ করে। এ সময় বাড়ির লোকজনের কাছে বাবুল ধরা পড়েন। অন্যরা পালিয়ে যায়। পরে তাকে গ্রামবাসী পিটিয়ে রক্তাক্ত ও যখম করে। এমনকী তার দু’চোখেও আঘাত করা হয়। গ্রাম পুলিশের দেয়া খবরে সকালে ঝালকাঠি সদর থানা পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে ঝালকাঠি সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। পরে নিয়ে যাওয়া হয় বরিশালে। এ ঘটনায় তদন্ত করে পরবর্তী ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে পুলিশ জানায়।

আপনার মতামত জানানঃ